আজ সিরাজদিখানে ৩ সেতু উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী

 

সালাহউদ্দিন সালমান।
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তার সরকারি বাসভবন গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে মুন্সিগঞ্জ জেলার ১৩টি সেতুর উদ্বোধন করবেন তার মধ্যে সিরাজদিখান উপজেলার ৩ টি সেতু। আজ বুধবার (১৬ অক্টোবর) সকাল ১০টায় জেলা প্রশাসক সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত ভিডিও কনফারেন্স অনুষ্ঠানের মাধ্যমে এসব সেতু উদ্বোধন করা হবে বলে জানা যায়।সিরাজদিখান উপজেলার ইমামগঞ্জ সেতু, রসুনিয়া সেতু-১, রসুনিয়া-২ সেতু টির কাজ ইতোমধ্যে সম্পূর্ণ হয়ে গেছে । মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখান ঢাকা-মাওয়া মহাসড়কের নিমতলা হতে সিরাজদিখান উপজেলা মোড় পর্যন্ত এ রুটের ৭ টি বেইলী ব্রিজ কনক্রিটের ব্রিজে পরিণত করার কাজ পুরো দমে করে যাচ্ছেন সড়ক ও সেতু বিভাগ।নিমতলী হতে উপজেলা মোড় পর্যন্ত নির্মিতব্য ব্রীজগুলোর পাশে একটি করে ডাইভেশন বেইলি ব্রিজ নির্মাণ করা হয়েছে। গতকাল সরজমিনে গিয়ে দেখা যায় ইতোমধ্যে নিমতলা থেকে উপজেলা মোড় পর্যন্ত ৭ টি সেতুর মধ্যে ৬ টি সেতু দিয়েই যানবাহন চলাচল করছে। এর মধ্যে তিনটি সেতু পুরোপুরি সম্পূর্ণ।বাকি একটি সেতু শুধু নির্মাণাধীন আছে।জানাযায় টঙ্গীবাড়ি ও সিরাজদিখানের পূর্বাঞ্চলের লোকজনের ঢাকার সাথে সরাসরি যোগাযোগ অপর দিকে সিরাজদিখানের পশ্চিমাঞ্চলের ৬টি উপজেলার লোকজন উপজেলা সদর ও জেলা শহর মুন্সীগঞ্জের সাথে যোগাযোগের রাস্তা হওয়ায় এই রাস্তার পুরাতন বেইলী ব্রিজগুলো ব্যবহারে অনুপযোগী হয়ে পরে। এতে ব্রিজ ভেঙ্গে আশু জনদুর্ভোগ চরম হতে পারে আশংকা করে স্থানীয় সরকার বেইলি ব্রিজগুলো কনক্রিটের ব্রিজে পরিণত করার জন্য একযোগে কাজ করে যাচ্ছেন।সড়ক ও জনপদ বিভাগের উপবিভাগীয় প্রকৌশলী আবদুর রহমান জানান,মুন্সীগঞ্জে ১৩টি সেতুর কাজ শেষ হয়েছে চলতি বছরের জুন মাসে। এছাড়া এ প্রকল্পের আওতায় আরো ৮টি সেতুর কাজ চলমান। যার কাজ সম্পন্ন হতে সময় লাগবে ২০২০ সালের জুন মাস পর্যন্ত।

মুন্সিগঞ্জ প্রেসক্লাব সভাপতি মীর নাসির উদ্দিন উজ্জ্বল জানান, জেলা প্রশাসকের সঞ্চালনায় মুন্সিগঞ্জ জেলার ১৩টি সেতুর উদ্বোধন করবেন এবং এ আয়োজনে অংশগ্রহণ করবেন জেলার তিন এমপি, পুলিশ সুপার, জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান, উপজেলা পর্যায়ে জনপ্রতিনিধি, সরকারি কর্মকর্তা প্রমুখ। #